বিজনেস২৪বিডি ডেস্ক »

আব্দুল্লাহ ইবনে মাসউদ। রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম প্রিয় সাহাবিদের মধ্যে অন্যতম একজন। কুরআনের শ্রেষ্ঠ ক্বারিদের একজনও ছিলেন তিনি। তার ব্যাপারে রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছিলেন-

‘যে ব্যক্তি বিশুদ্ধভাবে কুরআন পাঠ করে আনন্দ পেতে চায়, যেমনি তা অবতীর্ণ হয়েছে- সে যেন ইবন উম্মু আবদের (আব্দুল্লাহ ইবনে মাসউদ) পাঠের অনুসরণে কুরআন পাঠ করে।’

হজরত আব্দুল্লাহ ইবনে মাসউদ পরকালের মুক্তির ব্যাপারে রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের ছোট্ট একটি কথার সঙ্গে নিজ থেকে একটি ছোট্ট একটি নসিহত পেশ করেছেন। যা মেনে চললে ওই ব্যক্তির জন্য পরকালে জান্নাত সুনিশ্চিত হয়ে যাবে।

হজরত আব্দুল্লাহ ইবনে মাসউদ রাদিয়াল্লাহু আনহু বর্ণনা করেন, রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম একটি কথা বলেছেন, আর ওই কথার উপর ভিত্তি করে আমি একটি কথা বলেছি। রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, ‘যে ব্যক্তি আল্লাহর সঙ্গে অপরকে অংশীদার সাব্যস্ত করে মারা যাবে, সে জাহান্নামে যাবে। আমি (আব্দুল্লাহ ইবনে মাসউদ) বলবো-

‘যে ব্যক্তি আল্লাহর সঙ্গে কাউকে অংশীদার সাব্যস্ত না করে মারা যাবে, সে জান্নাতে যাবে।’ (বুখারি)

পরকালের মুক্তির জন্য রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের সতর্কতায় তার প্রিয় সাহাবির ছোট্ট কথাটি মুমিন মুসলমানের জন্য অতি মূল্যবান নসিহত। যে কেউ এ কথার ওপর আমল করবে তার পরকালীন মুক্তি সুনিশ্চিত।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে ছোট্ট এ নসিহত ‘আল্লাহর সঙ্গে কাউকে অংশীদার সাব্যস্ত না করে জান্নাতের পথ সুগম করার তাওফিক দান করুন। আমিন।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »