বিজনেস২৪বিডি ডেস্ক »

মেছতার সমস্যায় অনেকে ভোগেন। মেছতা হলে প্রাথমিকভাবে করণীয় কী, এ বিষয়ে কথা বলেছেন ডা. জাহেদ পারভেজ। বর্তমানে তিনি শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজে চর্ম ও যৌন রোগ বিভাগের সহকারী অধ্যাপক হিসেবে কর্মরত।

মেছতা যেই জায়গায় হয়, সেখানে মেলানিন পিগমেন্টেশন বেড়ে যায়। এর পেছনে অনেক কারণ রয়েছে। ওরাল কনট্রাসেপটিভ পিলের কারণে হতে পারে। জিনগত কারণ খুব ভালো করে কাজ করে। পরিবারের কারো ছিল, সেটি কিন্তু ক্রমান্বয়ে কেউ না কেউ পেয়ে যায়। যাদের ত্বকে রোদে বেশি পোড়ে তাদের ক্ষেত্রে এই সমস্যা হতে পারে।

মেছতা কয় ধরনের?

এটি মূলত তিন ধরনের। একটি হলো, ভেরি সুপার ফিশিয়াল, মিকসড, আরেকটি হলো ডিপ ডার্মা। সুপার ফিশিয়াল একদম উপরের দিকে যেটি, সেটি। মিকসড ভ্যারাইটি চিহ্নিত করা যায়, একটি বিশেষ আলোর মাধ্যমে। একে ওডস ল্যাম্প এক্সামিনেশন বলি। আর ডিপ ডার্মাল যেটি এর অনেকদিন পর্যন্ত চিকিৎসা চালিয়ে যেতে হয়। ডিপ ডার্মাল ফিরে ফিরে আসতে চায়। এর কারণে কম-বেশি সবারই চিকিৎসকের পরামর্শে থাকা উচিত।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »