এমন ড্র মেনে নিয়ে পারছে না অস্ট্রেলিয়া

স্টাফ রিপোর্ট

লক্ষ্য ৪০৭ রানের, ওভার বাকি ১৩২; টেস্ট ক্রিকেটে এমন সমীকরণে যেকোনোদিন এগিয়ে রাখা হয় বোলিং দলকে। কেননা পঞ্চম দিনের পুরো ৯০ ওভার খেলাই যেকোনো ব্যাটিং দলের জন্য দুঃসাধ্য কাজ। এরসঙ্গে আবার আগেরদিনের শেষ সেশন যোগ করলে চ্যালেঞ্জটা হয়ে যায় পাহাড়সম।

বোর্ডার-গাভাস্কার ট্রফির সিডনি টেস্টে ভারতীয় ক্রিকেট দলের সামনে এমনই চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়েছিল অস্ট্রেলিয়া। যেখানে চতুর্থ দিনের শেষ বিকেলে আবার ২টি উইকেটও তুলে নিয়েছিল তারা। ফলে শেষদিন ম্যাচ বাঁচাতে ভারতকে খেলতে হতো ৯৮টি ওভার, হাতে ছিল ৮টি উইকেট।

রীতিমতো রেকর্ড গড়েই এ চ্যালেঞ্জে জিতেছে ভারত। ম্যাচের চতুর্থ ও নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে তারা সবমিলিয়ে ব্যাটিং করেছে ১৩১ ওভার, উইকেট হারিয়েছে মাত্র ৫টি। দিনের ১ ওভার বাকি থাকতে ভারতের সংগ্রহ যখন ৫ উইকেটে ৩৩৪ রান, তখন ড্র মেনে নেন অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক টিম পেইন।

অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট ড্র করার পথে ম্যাচের চতুর্থ ইনিংসে এটি দ্বিতীয় সর্বোচ্চ সংগ্রহ। ১৯৯১ সালে এডিলেইডে ম্যচের শেষ ইনিংসে ৩৩৫ রান নিয়ে ড্র করেছিল ইংল্যান্ড। এছাড়া ওভারের হিসেবে ভারতের ম্যাচ বাঁচানোর তালিকায় এটি চলে এসেছে চতুর্থ স্থানে।

১৯৭৯-৮০ মৌসুমে পাকিস্তানের বিপক্ষে দিল্লি টেস্টে ১৩১ ওভার ব্যাট করে ম্যাচ ড্র করেছিল তারা। চতুর্থ ইনিংসে সর্বোচ্চ ১৫০.৫ ওভার ব্যাটিং করে ম্যাচ ড্র করার রেকর্ড রয়েছে ভারতের। যা তারা করেছিল ইংল্যান্ডের বিপক্ষে, ১৯৭৯ সালের ওভাল টেস্টে।

ভারতের এমন দৃঢ়তাপূর্ণ ব্যাটিংয়ে ম্যাচ ড্র করে ফেলাটা ঠিক হজম করতে পারছেন না অসি অধিনায়ক পেইন। ম্যাচ শেষে তিনি বলেন, ‘ম্যাচ জেতার মতো যথেষ্ঠ সুযোগ আমরা তৈরি করেছিলাম। এটা হজম করার মতো নয়। আমাদের বোলাররা দারুণ ছিল। নাথান লিয়ন দুর্দান্ত বোলিং করেছে।’

অস্ট্রেলিয়ার বোলাররা সত্যিই অনেক সুযোগ তৈরি করেছে। কিন্তু একের পর এক সেগুলো হাত থেকে ফেলে দিয়েছেন উইকেটরক্ষক পেইন। তিনি দুইবার জীবন দান করেছেন রিশাভ পান্তকে। যিনি খেলেছেন ৯৭ রানের ইনিংস। এছাড়া দিনের একদম শেষভাগে গিয়ে ছেড়েছেন হানুমা বিহারির ক্যাচ। যিনি ১৬১ বল খেলে নিশ্চিত করেছেন ড্র।

ক্যাচ ছাড়ার কথাও এসেছে ম্যাচ পরবর্তী পুরস্কার বিতরণীতে। অসি অধিনায়ক বলেন, ‘সুযোগ এসেছিল আমাদের হাতে। কিন্তু আমরা, বিশেষ করে আমি ক্যাচগুলো হাতে রাখতে পারি। ব্রিসবেন টেস্টের অপেক্ষায় আছি। শেষ দুই ম্যাচে আমরা খেলতে পারিনি। তবে এ ম্যাচে ব্যাট হাতে কিছুটা ভাল করেছি। কিছু ইতিবাচক জিনিস পেয়েছি এই ম্যাচ থেকে।’

2 thoughts on “এমন ড্র মেনে নিয়ে পারছে না অস্ট্রেলিয়া

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *