টাকার জন্য মর্গে পড়ে আছে অভিনেত্রী মিনু মমতাজের লাশ

করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেলেম অভিনেত্রী মিনু মমতাজ। মঙ্গলবার (২২ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১টায় রাজধানীর গ্রীন লাইফ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

গ্রীন লাইফ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ এ তথ্য নিশ্চিত করে। তারা জানায়, বর্ষীয়ান এই অভিনেত্রী করোনায় আক্রান্ত ছিলেন।

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, জয়নব হাবিব ওরফে মিনু মমতাজ দুপুরে মারা গেলেও তার মরদেহ পড়ে আছে হাসপাতাল মর্গে। কারণ হিসেবে জানা গেল প্রায় ৩ লাখ টাকা বিল বাকি আছে হাসপাতালে। বিল পরিশোধ করতে হবে শুনেই তার সন্তানরা কেউ আসছেন না।

হাসপাতালটির কাস্টমার কেয়ার থেকে মনিরুজ্জামান বলেন, ‘গত ৪ সেপ্টেম্বর উনাকে হাসপাতালে করোনা সন্দেহে ভর্তি করা হয়। টেস্ট করা হলে করোনা পজিটিভ আসে। এরপর তাকে করোনা ইউনিটে বিশেষ চিকিৎসা দেয়া হয়েছে ২২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত। চিকিৎসা বাবদ মোটা অংকের বিল বাকি। সেটা পরিশোধ করা নিয়ে ঝামেলা হচ্ছে। বিষয়টা বেদনাদায়ক। তবে উনার আত্মীয়স্বজনরা যোগাযোগ করেছেন আমাদের সঙ্গে। আমরাও বিল কাটছাঁট করে মিনু মমতাজের মরদেহ আত্মীয়স্বজনদের কাছে হস্তান্তরের ব্যবস্থা করছি।’

তার সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, এখন পর্যন্ত শোবিজসংশ্লিষ্ট কোনো সংগঠনও যোগাযোগ করেনি এ অভিনেত্রীর ব্যাপারে খোঁজ নিতে।

প্রসঙ্গত, কয়েক দশক ধরে টিভি নাটকে নিয়মিত অভিনয় করেছেন মিনু মমতাজ। অনেক সিনেমায়ও কাজ করেছেন তিনি। দীর্ঘদিন ধরে কিডনি ও চোখের সমস্যায় ভুগছিলেন।

তার চিকিৎসার জন্য গত বছর ৫ লাখ টাকা অনুদান দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *