ভারতবর্ষের সংজ্ঞা বদলে ফেলতে চাচ্ছেন বিজেপি

সংবিধানে ভারতবর্ষের যে সংজ্ঞা রয়েছে সেটা হয়ত এবার বদলে ফেলতে চাচ্ছেন বিজেপির নেতা মন্ত্রীরা। কারণ সংবিধানে লেখা আছে ভারত ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্র। কিন্তু বিজেপি সাংসদ ও অভিনেতা রবি কিষাণের দাবি ভারত ‘হিন্দু রাষ্ট্র’।

বুধবার রবি কিষাণের এমন বক্তব্যের পর থেকেই দেশজুড়ে বিতর্কের ঝড় বয়ে গেছে। সিটিজেনশিপ অ্যামেন্ডমেন্ট বিল নিয়ে বক্তব্য রাখতে গিয়ে সংবাদসংস্থা এএনআইকে রবি কিষাণ বলেন, ভারতে হিন্দুদের সংখ্যা ১শ কোটি। তাই স্বাভাবিকভাবেই ভারত একটি হিন্দু রাষ্ট্র।

তিনি আরও বলেন, বিশ্বে খ্রিষ্টান ও মুসলিম দেশ রয়েছে। আমাদের সংস্কৃতিকে বাঁচিয়ে রাখতে ভারত নামের একটি আশ্চর্য দেশ রয়েছে। তিনি বলেন, যদি বিশ্বে খ্রিষ্টান বা মুসলিম রাষ্ট্র থাকতে পারে তাহলে হিন্দু রাষ্ট্র থাকতে সমস্যা কোথায়?

তার দাবি যতক্ষণ একজনও ভারতকে মাতৃভূমি এবং নিজেকে হিন্দু বলে মনে করবেন, এই দেশ হিন্দু রাষ্ট্র থাকবে। যদিও আরএসএসের হিন্দু রাষ্ট্র তৈরির পথেই হাঁটছেন নরেন্দ্র মোদি ও অমিত শাহ। বিরোধীরা বরাবরই এমন অভিযোগ করে আসছেন। এমআইএম-এর নেতা আসাদুদ্দিন ওয়াইসি বলেন, এই আইন আনার অর্থ ভারতকে ধর্মভিত্তিক রাষ্ট্র তৈরি করা, দ্বিজাতি তত্ত্বকে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা।

Leave a Reply

Your email address will not be published.