মিরর ফাইন্যান্সিয়াল ম্যানেজমেন্টকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা

0
5
বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন
বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন

মিরর ফাইন্যান্সিয়াল ম্যানেজমেন্টকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা করেছে শেয়ারবাজারের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। একইসঙ্গে প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মো. রেজাউল আলমকে ৩ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

মিরর ফাইন্যান্সিয়াল ম্যানেজমেন্ট দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) স্ট্রেকহোল্ডার। মঙ্গলবার অনুষ্ঠিত বিএসইসির ৬১৮তম নিয়মিত সভায় প্রতিষ্ঠানটিকে জরিমানা করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

বিএসইসি জানিয়েছে, বিএসইসির গঠিত পরিদর্শন টিম এবং ডিএসইর পরিদর্শন প্রতিবেদনে মিরর ফাইন্যান্সিয়াল ম্যানেজমেন্টের বিরুদ্ধে সিকিউরিটিজ আইন ভঙ্গের তথ্য উঠে এসেছে।

পরিদর্শনে বেরিয়ে এসেছে, মিরর সিকিউরিটিজের কিছু গ্রাহকের পোর্টফোলিও স্টেটমেন্ট এবং ডিপিএ ৬ এর তথ্যে বিভিন্ন তারিখে গরমিল রয়েছে। এর মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানটি সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (স্টক-ডিলার, স্টক-ব্রোকার ও অনুমোদিত প্রতিনিধি) বিধিমালা ২০০০ এর বিধি ১১ এবং দ্বিতীয় তফসিলের আচরণ বিধি ১ ও ৬ ভঙ্গ করেছে। একই সঙ্গে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ রুলস ১৯৮৭ এর রুল ৮ (সিসি) ভঙ্গ করেছে।

পরিদর্শনে আরও বেরিয়ে এসেছে, মিরর ফাইন্যান্সিয়াল ম্যানেজমেন্ট তাদের সমন্বিত গ্রাহক হিসেবে ঘাটতির মাধ্যমে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ রুলস ১৯৮৭ এর রুল ৮ এ এর সাব-রুলস (১) ভঙ্গ করেছে।

এসব অনিয়মের কারণে প্রতিষ্ঠানটিকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। আর প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রেজাউল আলম তার স্ত্রী তাসলিমা শাহনাজের নামে পরিচালিত বিও হিসাবের অথরাইজ পারসন। এই বিও হিসাবে মিরর ফাইন্যান্সিয়াল ম্যানেজেমেন্ট ঋণ দিয়ে কমিশনের নির্দেশনা লঙ্ঘন করেছে। এজন্য মো. রেজাউল আলমকে ৩ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

যারা অনলাইন থেকে টাকা উপার্জন করতে চান তাদের জন্য এই ভিডিও

উত্তর দিন